শ্রীমঙ্গলে প্রাইভেটকার সহ তিন গরুচোর আটক



শ্রীমঙ্গল (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি :

শ্রীমঙ্গলে চুরাই কাজে ব্যবহৃত প্রাইভেটকার সহ তিন পেশাদার গরু চোরকে আটক করেছে পুলিশ। আটক গরু চোরদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে রাজনগর উপজেলা থেকে আন্তঃজেলা চোরচক্রের সর্দার দুরুদ মিয়ার ভাই আব্দুরুপ মিয়ার গোয়াল ঘর থেকে দুটি চোরাই গরু সহ আশপাশ থেকে মোট আটটি গরু উদ্ধার করে শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশ। বৃহস্পতিবার (১৮মার্চ) দুপুরে শ্রীমঙ্গল থানা থেকে প্রেসবিফিং করে সাংবাদিকদের এ তথ্য নিশ্চিত করেন শ্রীমঙ্গল থানার ওসি তদন্ত মো. হুমায়ূন কবির। প্রেসবিফিংয়ে জানানো হয়, মঙ্গলবার ১৬ মার্চ রাতে শ্রীমঙ্গলের কালাপুর ইউনিয়নের লামুয়া গ্রামের কৃষক হারিছ মিয়ার গোয়ালঘর থেকে দুটি গরু চোরি হয়। কৃষক হারিছ মিয়া পরে বুঝতে পারেন, গরুগুলো গাড়ি দিয়ে চোরি করা হয়েছে। পরদিন তিনি শ্রীমঙ্গল থানায় একটি গরু চোরির মামলা দায়ের করেন। পরে শ্রীমঙ্গল থানার এসআই আলমগীর ও এএসআই সারোয়ার সহ একদল পুলিশ শ্রীমঙ্গল ভুনবীর চৌমুহনী থেকে গরুচোর চক্রের সাদ্দাম মিয়া, আনোয়ার মিয়া ও দেলোয়ার মিয়া কে একটি প্রাইভেটকার সহ আটক করে। আটক তিন গরু চোরের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে রাতে মৌলভীবাজার জেলার রাজনগর থেকে আন্তঃজেলা চোর চক্রের সর্দার দুরুদ মিয়ার বাড়ি থেকে দুরুদের ভাই হারিছের ঘর ও আশপাশের ঘর থেকে চোরাই গরুগুলো উদ্ধার করে শ্রীমঙ্গল থানায় নিয়ে আসেন। শ্রীমঙ্গল থানার ওসি তদন্ত হুমায়ুন কবির জানান, এর আগেও শ্রীমঙ্গল থেকে গরু চোরির অভিযোগ পাওয়া গেছে। উদ্ধার করা গরু আইনি প্রক্রিয়ামতো প্রকৃত মালিকদের হাতে তোলে দেওয়া হবে। তিনি আরো জানান, মৌলভীবাজার আন্তঃজেলা গাড়ি চুর ও গরু চুর চক্রের সন্ধান পুলিশের কাছে আছে। এই চোরচক্রের অন্যান্য সদস্যদের আটক করতে পুলিশের অভিযান অব্যহত আছে।

শেয়ার করুন!