দেশে ঋণ বৃদ্ধি পাচ্ছে, যা জনগণের ঘাড়েই চাপানো হচ্ছে: ফখরুল



ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি/

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘শ্রীলঙ্কার মতো অবস্থা হচ্ছে বাংলাদেশের। এ দেশের পরিস্থিতি শ্রীলঙ্কার মত হতে বাধ্য। কারণ হচ্ছে, এখানকার অর্থনীতি ধ্বংস হয়ে যাচ্ছে। এদেশে ঋণ বৃদ্ধি পাচ্ছে, যা সাধারণ জনগণের ঘাড়েই চাপানো হচ্ছে। এসব কারণে দেশে সমস্যা অনেক বেশি বৃদ্ধি পাবে এবং মানুষ পথে নামতে বাধ্য হবে।’

শুক্রবার বিকেলে সদর উপজেলার জগন্নাথপুর ইউনিয়নের খারুয়াডাঙ্গা এলাকায় নির্বাচনে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে সহায়তা প্রদান অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির কারণে সরকারের পদত্যাগ করা উচিৎ উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, ‘বাণিজ্যমন্ত্রী নিজে একজন বড় ব্যবসায়ী মানুষ। ওনার ব্যবসায়ীদের চরিত্র সম্পর্কে ধারণা থাকা উচিৎ ছিল। সেক্ষেত্রে ব্যবসায়ীদের বিশ্বাস করা মানে, তাদের সুযোগ সৃষ্টি করে দিয়েছেন। গোটা যে অবস্থাটা সে অবস্থায় আমরা দেখতে পাই, সরকারের পরিচ্ছন্ন মদদে এই দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি করা হচ্ছে। তাদের সিন্ডিকেটই দায়ী দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধিতে।’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের প্রশ্নে জবাবে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আওয়ামী লীগ ও তাদের নেতারা সম্পূর্ণভাবে এই রাষ্ট্রকে একটি ব্যার্থ রাষ্ট্রে পরিণত করেছেন। তাদের পদত্যাগ করা উচিৎ। কারণ, গোটা দেশের মানুষ জানে তাদের সব ক্ষেত্রে ব্যার্থতা, দুর্নীতি, টাকা পাচার, অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দেওয়া- সব মিলিয়ে তাদের পদত্যাগ করা উচিত।’

এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা বিএনপির সভাপতি তৈমুর রহমান, অর্থ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম, সদর উপজেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল হামিদ, ইউনিয়ন সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন, সাধারণ সম্পাদক মাজহারুল ইসলামসহ জেলা উপজেলার নেতারা।

শেয়ার করুন!