করোনার জন্য নির্বাচনের তারিখ পরিবর্তনের পরিকল্পনা নেই : সিইসি



সিএনবাংলাদেশ অনলাইন :

করোনা ভাইরাসের কারণে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন (চসিক) নির্বাচনের তারিখ পেছানোর আপাতত কোনো পরিকল্পনা নেই, বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কবমিশনার কে এম নুরুল হুদা। তবে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে, ব্যাপক আকারে সংক্রমণ দেখা দিলে নির্বাচন পেছানো নিয়ে ভাবা হবে। এছাড়া ভোটার সমাগম বাড়াতে নির্বাচনের দিন আধাবেলা অফিস খোলা রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

আজ (শনিবার) দুপুরে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে দায়িত্ব প্রাপ্ত কর্মকর্তা ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সাথে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন। এসময় সিইসি বলেন, যেহেতু এখনো বাংলাদেশে করোনা দুর্যোগ হিসেবে দেখা দেয়নি সেহেতু নির্বাচন পেছানোর ব্যাপারে এখনই কিছু ভাবছেনা নির্বাচন কমিশন। তবে পরিস্থিতি যদি খারাপ হয় তখন নির্বাচন পেছানোর ব্যাপারে ভাবা হবে।

সিইসি আরো বলেন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের আগে টানা তিনদিন ছুটি থাকায় ভোটার সমাগম কম হওয়ার আশঙ্কা থেকে নির্বাচনের দিন আধাবেলা অফিস খোলা রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে নির্বাচন কমিশন। এছাড়া সীমিত আকারে যানবাহন চলাচলেরও অনুমতি দেয়া হবে।

এছাড়া ভোটের দিন ভোটারদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার পাশাপাশি ভোটকেন্দ্র থেকে কোনো এজেন্টকে যাতে কেউ বের করে দিতে না পারে সে বিষয়টি নিশ্চিত করতে আইনশৃঙ্খলাবাহিনী ও নির্বাচনী কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেয়া হয়েছে বলেও জানান সিইসি।

বৈঠকে চট্টগ্রামের বিভাগীয় কমিশনার এ বি এম আজাদ, জেলা প্রশাসক ইলিয়াস হোসেন, সিএমপি কমিশনার মাহবুবুর রহমানসহ নির্বাচনী কর্মকর্তাবৃন্দ ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। আগামী ২৯ মার্চ চট্টগ্রাম সিটি করর্পোরেশন নিবাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

শেয়ার করুন!