ব্যাটিং কোচের ‘পরীক্ষা’ নেবেন তামিমরা



ক্রীড়া প্রতিবেদক :

তামিমদের নতুন ব্যাটিং কোচ অ্যাশওয়েল প্রিন্স – ফাইল ছবি

ড্যানিয়েল ভেট্টরি নিউজিল্যান্ডের বাইরে কাজ করতে অপরাগতা প্রকাশ করায় জাতীয় দলের স্পিন বোলিং কোচ হিসেবে নিয়োগ পেলেন শ্রীলঙ্কার রঙ্গনা হেরাথ। জিম্বাবুয়ে সফর থেকেই সাকিবদের কোচ তিনি। এই লঙ্কানের সঙ্গে টি২০ বিশ্বকাপ পর্যন্ত চুক্তি করেছে বিসিবি।

হেরাথকে বিশ্বকাপ পর্যন্ত পাওয়া গেলেও ব্যাটিং কোচ দক্ষিণ আফ্রিকান অ্যাশওয়েল প্রিন্স কাজ করবেন টাইগারদের জিম্বাবুয়ে সফরে। দক্ষিণ আফ্রিকা দলের সাবেক এ ব্যাটিং পরামর্শক কোচ লেভেল থ্রি কোচিং কোর্স করা। হেরাথের কোচিং অভিজ্ঞতা না থাকলেও লেভেল থ্রি কোচিং কোর্স সম্পন্ন করা স্পিন বোলিংয়ের ওপর।

এ দুই কোচের পারফরম্যান্স সন্তোষজনক হলে চুক্তি বাড়ানোর পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানান ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান আকরাম খান। হেরাথকে নিয়ে স্পিনারদের কোনো আপত্তি না থাকলেও অ্যাশওয়েলের সঙ্গে সরাসরি কাজ করে ফিডব্যাক দেবেন ব্যাটসম্যানরা। তামিমদের পছন্দ হলেই কেবল পরের সিরিজের জন্য ডাক পাবেন নতুন ব্যাটিং কোচ।

এ প্রসঙ্গে আকরাম বলেন, ‘ব্যাটিং কোচের ব্যাপারে একটু সময় নেওয়া হচ্ছে। জিম্বাবুয়ে সফরে ব্যাটসম্যানরা দেখতে পারবে তিনি কেমন কাজ করেন। খেলোয়াড়দের কাছ থেকে ভালো ফিডব্যাক পেলে নতুন করে চুক্তি হবে।’

টাইগারদের সর্বশেষ সিরিজে তামিমদের ব্যাটিং কোচ ছিলেন ইংল্যান্ডের জন লুইস। এই ইংলিশকেও নিয়োগ দেওয়া হয়েছিল এক সিরিজের জন্য। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টাইগারদের হোম সিরিজ ছিল তার প্রথম অ্যাসাইনমেন্ট। পরে নিউজিল্যান্ড ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে অ্যাওয়ে আর হোম সিরিজে কাজ করেন।

তার পারফরম্যান্সে অখুশি ছিলেন ক্রিকেটাররা। যে কারণে লুইসের সঙ্গে নতুন করে চুক্তি করেনি বিসিবি। তবে ব্যাটিং কোচ হিসেবে জাতীয় দলের সাবেক প্রধান কোচ জেমি সিডন্সও লাইনে ছিলেন। তাকে নিয়োগ দেওয়ার ক্ষেত্রে বয়স বাধা হয়ে দাঁড়ায়। ৫৭ বছর বয়সী সিডন্স আগের মতো আর কাজ করতে পারবেন না বলে মত দেন কর্মকর্তাদের একাংশ। যে কারণে প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গোর পছন্দে অ্যাশওয়েলকে এক সিরিজের জন্য নিয়োগ দেওয়া হয়। অ্যাশওয়েল তিন সংস্করণেই দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে খেলেছেন।

শেয়ার করুন!