আইডিইবির নির্বাচনের তারিখ ঘোষণার দাবি



প্রতীকী ছবি ।
সিএনবাংলাদেশ ডেস্ক/

নতুন কমিশন গঠন করে ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশের নির্বাচনের তারিখ ঘোষণার দাবি জানিয়েছেন বঙ্গবন্ধু ডিপ্লোমা প্রকৌশলী পরিষদ।

মঙ্গলবার (১৪ জুন) সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবের জহুর হোসেন চৌধুরী হলে বঙ্গবন্ধু ডিপ্লোমা প্রকৌশলী পরিষদ আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি জানানো হয়।

লিখিত বক্তব্যে বঙ্গবন্ধু ডিপ্লোমা প্রকৌশলী পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আবদুল হক বলেন, ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের জাতীয় সংগঠন আইডিইবির শীর্ষ নেতারা নীতি-নৈতিকতা বিবর্জিত। এখানে নেতৃত্বের সঙ্গে নেতাদের নৈতিকতার কোনো সম্পর্ক নেই। কোনো কোনো নেতার চরিত্রে অবক্ষয় ঘটেছে। কেউ কেউ নারী কেলেঙ্কারিতে জড়িয়ে পুলিশ বাদী মামলার আসামি। আবার কেউ ঋণখেলাপি হয়ে বিদেশ গমন নিষিদ্ধ হয়েছেন। তারা ব্যক্তি স্বার্থ আদায়ে অন্ধ।

আইডিইবির নির্বাচনে কঠিন শর্ত আরোপ করে হাজার হাজার সদস্যদের ভোটের গণতান্ত্রিক অধিকার হরণ করা হয়েছে। নতুন শর্ত বাতিল করে পূর্বের নিয়মানুযায়ী নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার পূর্ব পর্যন্ত সদস্য হলে ভোট দেওয়ার বিধান রাখতে হবে।’

তিনি বলেন, আইডিইবির ২০১৬ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের ক্যাডার বাহিনী দিয়ে গুম করে রেখেছিল ও নমিনেশন পেপার সাবমিট করতেই দেয়নি। এছাড়া প্রার্থী ও সমর্থকদের আহত করে ভোট কেন্দ্রে ঢুকতে দেয়নি। আইডিইবির ২০১৮ সালের অবৈধ নির্বাচনের কারণে নির্বাচন কমিশনের সদস্যদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা চলমান আছে। সেই নির্বাচনের মেয়াদও ২০২১ সালের ডিসেম্বরে শেষ হয়েছে। এরপরও ২০২১ সালের ডিসেম্বরে অনুষ্ঠেয় কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটি (কেনিক) নির্বাচন না দিয়ে বর্তমান কেনিক অন্যায় ও অযৌক্তিকভাবে ক্ষমতা জবরদখল করে আছে।

আবারও লোক দেখানো নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়েছে দাবি করে আবদুল হক বলেন, যারা নির্বাচন সংক্রান্ত বিচারাধীন মামলার বিবাদী, আইডিইবির সুবিধাভোগী, আইডিইবির শীর্ষ নেতাদের ব্যবসায়িক অংশীদার তাদের মাধ্যমেই নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়েছে। এতে আমরা শঙ্কিত।

সংবাদ সম্মেলনে নিরপেক্ষ ও গ্রহণযোগ্য একটি নির্বাচন কমিশন গঠন এবং অবিলম্বে নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা দেওয়ার প্রয়োজনীয় নির্দেশনার জন্য প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন। এছাড়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হুমকি ও কটূক্তি করার জন্য তীব্র প্রতিবাদসহ দোষী ব্যক্তিদের দ্রুত বিচারের আওতায় আনার জন্য জোর দাবি জানান সংগঠনটির নেতারা।

শেয়ার করুন!