‘মোদি বাংলাদেশে পা রাখলে দেশ বদর যুদ্ধের কারবালা প্রান্তরে রুপ নেবে’



নিজস্ব প্রতিবেদক :

ভারতে হিন্দুত্ববাদীদের সহিংসতা ও মুসলিম গণহত্যা-নির্যাতনসহ মসজিদ মিনারে অগ্নিসংযোগের প্রতিবাদে সিলেটে বিক্ষোভ মিছিল সমাবেশ করেছে বাংলাদেশ জমিয়তে উলামায়ে সিলেট মহানগর শাখা ।

শুক্রবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) বাদ জুমআ বন্দরবাজার দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে মিছিল শুরু হয়ে নগরীর বিভিন্ন পয়েন্ট প্রদক্ষিণ শেষে সিটি পয়েন্টে এসে পথসভা অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় বিক্ষুব্ধ জমিয়তের নেতাকর্মীরা ও মুসল্লিরা আবু জাহেলের উত্তরসূরী সন্ত্রাসী নরেন্দ্র মোদির কুশপুত্তলিকা দাহ করে এবং মোদির দু’গালে জুতা নিক্ষেপ করে। তখন বক্তারা বলেন, ‘মুজিববর্ষে মোদি বাংলাদেশে পা রাখলে বদরের যুদ্ধের পূণরাবৃত্তি ঘটবে। এদেশের জনগণ তাকে মেনে নিবে না। কারন মোদি নিরীহ মুসলমানদের উপর হত্যাযজ্ঞ চালাচ্ছে। নির্বিচারে বাড়ি ঘর পুরিয়ে পাখির মতো গুলি করে মানুষ হত্যা করছে। মসজিদ-মাদ্রাসা জ্বালিয়ে দিয়ে মসজিদের মিনারে ‘হনুমানের পতাকা’ ঝুলিয়ে দিচ্ছে। এসকল কাজ বিশ্বের চারশ’কোটি মুসলমানদের মনে আঘাত দিয়েছে। তাই মুজিববর্ষ উদযাপন অনুষ্ঠানে ইসলাম বিদ্বেষী মোদিকে বাংলাদেশের জনগণ দেখতে চায় না। যদি মোদি মুজিববর্ষে বাংলাদেশে পা রাখে তাহলে পুরো দেশ বদর যুদ্ধের কারবালা প্রান্তরে রুপ নেবে।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম সিলেট মহানগর সভাপতি মাওলানা খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে ও ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক মুহাম্মদ লুৎফুর রহমানের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি সাবেক এমপি এ্যাডভোকেট মাওলানা শাহীনুর পাশা চৌধুরী। মহানগর জমিয়তের সিনিয়র সহ সভাপতি অধ্যক্ষ হাফিজ আব্দুর রহমান সিদ্দিকী, জেলার সাধারন সম্পাদক মাওলানা আতাউর রহমান, মহানগর সহ সভাপতি মাওলানা খায়রুল হোসেন, সাবেক সাধারন সম্পাদক মাওলানা সৈয়দ শামীম আহমদ, মহানগর সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ সালিম ক্বাসেমি, মহানগর জাতীয় ইমাম সমিতির সভাপতি মাওলানা হাবি আহমদ শিহাব, যুব জমিয়তের কেন্দ্রীয় নেতা মাওলানা আখতারুজ্জামান তালুকদার, মাওলানা সালেহ আহমদ শাহবাগী, হাফিজ কবির আহমদ, মহানগর যুব জমিয়তের সভাপতি মাওলানা কবির আহমদ, মাওলানা মতিউর রহমান, আসাদ উদ্দিন ও সৈয়দ ওবায়দুর রহমান প্রমূখ।

শেয়ার করুন!